বৃহস্পতিবার , ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮


নতুন বাংলাদেশ গড়ার কর্মসূচি ঘোষণা হবে ৬ অক্টোবর : এরশাদ




ফটো নিউজ ২৪ : 08/09/2018


-->

  নিউজ ডেস্ক : সাবেক রাষ্ট্রপতি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন, আগামী ৬ অক্টোবর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহাসমাবেশ করে জাতীয় নির্বাচনী এবং নতুন বাংলাদেশ গড়ার কর্মসূচি ঘোষণা করবো। আমরা শক্তি অর্জন করেছি, ক্ষমতায় যেতে এখন প্রস্তুত। আমরা আর বিরোধী দলে থাকতে চাইনা, নিজের পায়ে দাঁড়াতে চাই।
শনিবার সকালে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ায়ার্স ইনষ্টিটিউশন চত্বরে পার্টির তৃণমূল নেতা-কর্মীদের সঙ্গে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের যৌথ সভায় সভাপতির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ হাজার-হাজার কর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেন, এলাকায় গিয়ে পার্টির কমিটি করার মাধ্যমে পার্টিকে শক্তিশালী করতে হবে। ৬ বছর জেলে ছিলাম, এমন কোন নির্যাতন ছিলোনা যা আমার সাথে এবং জাতীয় পার্টির সাথে করেনি। শুধু মানুষের ভালোবাসায় এখনো বেঁচে আছি। কারণ আমাদের হাতে রক্তের দাগ নেই। মানুষের ভালোবাসা আছে, সমর্থন আছে এবার আমরা কাজে লাগাতে চাই।
তিনি বলেন, আমরা ক্ষমতায় গিয়ে দেশ থেকে সন্ত্রাস, খুন, গুম, নৈরাজ্য ও দুর্নীতি আর সহিংস রাজনীতি দূর করবো। আমরা সম্প্রীতির বাংলাদেশ গড়বো।শান্তির বাংলাদেশে খুন-গুম থাকবে না, আমরাই শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনবো। প্রমাণ হয়েছে আমরা ছাড়া আর কোন দলই দেশকে সুশাসন দিতে পারেনি। শত নির্যাতনেও আমরা মাথা নত করিনি, আমরা সামনে এগিয়েছি ক্ষমতায় যেতে। আমরা পিছপা হবো না, আমরা প্রস্তুত, আমরা শক্তি অর্জন করেছি।
পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান বেগম রওশন এরশাদ এমপি বলেন, এবারের সংগ্রাম আমাদের ক্ষমতায় যাওয়ার সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম দেশের মানুষের ভাগোন্নয়নের সংগ্রাম। আমরা নির্বাচনে মাধ্যমে ক্ষমতায় গিয়ে সন্ত্রাসমুক্ত দেশ গড়বো। সবার জন্য উন্নতমানের শিক্ষা নিশ্চিত ও বেকারদের জন্য কর্মসংস্থান সৃষ্টি করবো। তিনি জাতীয় পার্টির উন্নয়ন কর্মকাণ্ড তরুণদের সামনে তুলে ধরতে, নেতা-কর্মীদের প্রতি আহবান জানান।
পার্টির কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেন, দেশবাসীর সামনে পরিস্কার হয়েছে ৯১ থেকে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি’র শাসনামলের চেয়ে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের ৯ বছর এদেশের শ্রেষ্ঠ সময় ছিলো। তিনিও দলকে সংগঠিত করতে সবার প্রতি আহবান জানান।
সভার শুরুতে পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার বলেন, আওয়ামী লীগ ও বিএনপির কাছে দেশের মানুষ নিরাপত্তা পায়নি। দেশের মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আমরা সাতাশ বছর মাথা নত করিনি। ৬ বছর কারাগারে রেখে বিএনপি এরশাদকে মেরে ফেলতে চেয়েছিলো। কিন্তু এই দেশের সাধারণ মানুষের কল্যাণের জন্যই আজো আল্লাহ্ বাঁচিয়ে রেখেছেন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদকে।
অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন প্রেসিডিয়াম সদস্য ও বন ও পরিবেশ মন্ত্রী ব্যরিষ্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, খেলাফত মজলিসের মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক, সাবেক মন্ত্রী কাজী ফিরোজ রশীদ এমপি, ইসলামী ফ্রন্টের মহাসচিব এম এ মতিন, সাবেক মন্ত্রী জিয়া উদ্দিন আহমেদ বাবলু এমপি, সাবকে মন্ত্রী সালমা ইসলাম এমপি, বিএনএ চেয়ারম্যান সেকান্দার আলী মনি, ঢাকা মহানগর দক্ষিনের সভাপতি সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, ইসলামী মহাজোটের আবু নাছের ওয়াহেদ ফারুক, এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙা এমপি, অ্যাডভোকেট শেখ সিরাজুল ইসলাম, শ্রম প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু, ফখরুল ইমাম এমপি, ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি এসএম ফয়সল চিশতী, সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম সেন্টু, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা শফিউল্লাহ আল মুনির, খুলনা জেলা সভাপতি শফিকুল ইসলাম মধু, সিলেট মহানগর সভাপতি ইয়াহ ইয়াহ চৌধুরী।
মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন খান, আবুল কাশেম, এমএ মান্নান, নাসরিন জাহান রত্না এমপি, গোলাম কিবরিয়া টিপু, সুনীল শুভ রায়, মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী, মীর আবদুস সবুর আসুদ, মেজর (অব.) খালেদ আখতার, সোলায়মান আলম শেঠ, আলহাজ আতিকুর রহমান আতিক, আবদুর রশীদ সরকার, মজিবুর রহমান সেন্টু, হাফিজুর রহমান, লিলি চৌধুরী এমপি, ব্যরিষ্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী, উপদেষ্টা রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, কাজী মামুন, রিন্টু আনোয়ার, নাজমা আকতার, মো. নোমান এমপি, ভাইস চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন রাজু, জহিরুল ইসলাম জহির, সরদার শাহজাহান, হাজী আবু বকর, নুরুল ইসলাম নুরু, বাহাউদ্দিন বাবুল, আলমগীর শিকদার লোটন, যুগ্ম মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকা, গোলাম মোহাম্মদ রাজু, শফিকুল ইসলাম শফিক ও মোস্তাকুর রহমান

— আর


-->


সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক: আবু সুফিয়ান
চেয়ারম্যান: মুসলিমা সুফিয়ান

কল: 01723-980255,01919-972103
নিউজ রুম :01710-972103
ইমেল: [email protected]

১২মধ্য বেগুনবাড়ি,তেজগাঁও শিল্প এলাকা,ঢাকা -১২০৮
ইমেল: [email protected]