শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৮


মানিকগঞ্জ হরিরামপুরে পদ্মা নদী ভাঙন




ফটো নিউজ ২৪ : 07/08/2018


-->

   আবুল বাশার, মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি: মানিকগঞ্জ হরিরামপুরে পদ্মা নদীর ভাঙন ব্যাপক আকার ধারণ করেছে। ভিটে-মাটি হারিয়ে গৃহহীন হয়ে পরেছে প্রায় ৩ শতাদিক পরিবার। নদীগর্ভে বিলিন হয়ে যাচ্ছে আবাদি ফসলী জমি। অসহায় হয়ে পরেছে ভাঙন কবলিত পরিবারগুলো। অনেকেই আশ্রয় নিচ্ছে খোলা আকাশের নিচে। এতে করে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখিন হচ্ছে তারা। আরও সমস্যা হচ্ছে রান্নাবান্না খাওয়া-দাওয়ার। সৃষ্টি হচ্ছে বিভিন্ন রোগবালাই। গোপিনাথপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কদ্দুস সাহেব বলেন, এই বর্ষায় আমার ইউনিয়নের প্রায় ২ শতাদিক ঘর-বাড়ি নদীগর্ভে বিলিন হয়ে গেছে। বাহাদুরপুর বাজারের কিছু অংশ ভেঙে গেছে। যদি এই নদী ভাঙন প্রতিরোধ করা না হয় তাহলে আরও অনেক বসতবাড়ি, ৩টি মসজিদ, ১টি প্রাইমারি স্কুল এবং অসংখ্য ফসলী জমি নদীগর্ভে চলে যাবে। কাঞ্চনপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইউনুছ গাজী বলেন, এই বর্ষায় আমার নির্বাচিত এলাকায় ৫০ থেকে ৫২টি ঘর-বাড়ি নদীগর্ভে বিলিন হয়ে গেছে। আরও কিছু ঘর-বাড়ি ভাঙনের আশঙ্কা রয়েছে। রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের চেয়াম্যান কামাল হোসেনের সাথে এই বিষয়ে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ব্যস্ততা দেখিয়ে পরে ফোন দিতে বলেন। পরবর্তীতে তার সাথে আর যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। হরিরামপুর উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান আবুল বাশার সবুজের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, রামকৃষ্ণপুর, গোপিনাথপুর, কাঞ্চনপুর এই ইউনিয়নগুলো বেশি ভাঙন কবলিত। কিছু দিন আগে মানিকগঞ্জ ২ আসনের সংসদ সদস্য মমতাজ বেগম এমপি ও মানিকগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব অ্যাডভোকেট গোলাম মহিউদ্দিন তার ভাঙন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেছেন। মানিকগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডকে ভাঙন বিষয়ে অবগত করা হয়েছে। এ নিয়ে সরকার কাজ করছে। মমতাজ বেগম এমপির নির্দেশে ভাঙন প্রতিরোধের জন্য ৫ হাজার জিও ব্যাগ বালু ভরে প্রস্তুত করা হচ্ছে বাহাদুরপুর বাজারে। গত রোববার থেকে কাজ শুরু করা হয়েছে। যে জায়গাগুলো বেশি ভাঙন কবলিত সেখানে ভাঙন প্রতিরোধে এই জিও ব্যাগগুলো ফেলা হবে। ভাঙন প্রতিরোধে স্থায়ী ব্যবস্থা সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বর্ষা শেষে রামকৃষ্ণপুর থেকে মালঞ্চ পর্যন্ত ভাঙন প্রতিরোধে স্থায়ী বেড়িবাঁধ হতে পারে। আমি হরিরামপুরের জনউন্নয়নে যথাসাধ্য কাজ করার জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। অবশেষে হরিরামপুরের ৩টি ইউনিয়নের ৫টি গ্রামের মানুষ আশা-ভরসায় সস্থিত ফিরে পেতে যাচ্ছে।

—- আর


-->


সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক: আবু সুফিয়ান
চেয়ারম্যান: মুসলিমা সুফিয়ান

কল: 01723-980255,01919-972103
নিউজ রুম :01710-972103
ইমেল: [email protected]

১২মধ্য বেগুনবাড়ি,তেজগাঁও শিল্প এলাকা,ঢাকা -১২০৮
ইমেল: [email protected]