বৃহস্পতিবার , ১৫ নভেম্বর ২০১৮


কিম জং-উনের সঙ্গে খাবার টেবিলে একচোট কৌতুক করে নিলেন ট্রাম্প!




ফটো নিউজ ২৪ : 12/06/2018


-->

ডোনাল্ড ট্রাম্প ও কিম জং-উনের মধ্যে বহুল প্রতিক্ষীত বৈঠকটি শেষ হয়েছে।

দুই নেতার মুখোমুখি বৈঠকটি শেষে দুজনই দুপুরের খাবারের জন্য নির্ধারিত রুমে যান।

দুই দেশের উচ্চপর্যায়ের কর্মকর্তারাও তখন সেখানে উপস্থিত ছিলেন। তাদের সবার সামনে একচোট কৌতুক করে নিলেন ট্রাম্প।

খাবার টেবিলের পাশে গিয়ে ট্রাম্প কিমকে টেবিলে বসার আহ্বান জানান।

কিম তখনো টেবিলের অন্যপাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন। চিত্রগ্রাহকরা একের পর এক ছবি তুলে যাচ্ছেন।

এসময় ট্রাম্প উপস্থিত চিত্রগ্রাহকদের লক্ষ্য করে বলেন, তারা যাতে এমনভাবে ছবি তোলেন যাতে তাকে ও কিমকে হ্যান্ডসাম দেখা যায়।

স্থানীয় সময় বিকেল ৪ টায় ট্রাম্প সংবাদ সম্মেলনে আসবেন। এটি ছাড়া আজকের দিনে আর কোনো ইভেন্ট নেই।

 

উল্লেখ্য, ১২ জুন, মঙ্গলবার সকালে সিঙ্গাপুরের স্যান্টোসা দ্বীপের ক্যাপেলা হোটেলে দুই নেতার এ বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়।

বহুল প্রতীক্ষিত বৈঠকটি শুরু হয় দুই নেতার করমর্দনের মাধ্যমে।

 

গত দেড় বছর তীব্র বাদানুবাদে লিপ্ত থাকা এ দুই নেতার মধ্যে মুখোমুখি বৈঠকটি বাংলাদেশ সময় মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টার পর শেষ হয়।

বৈঠকের আগে ট্রাম্প দাবি করেছিলেন বৈঠক শুরু হওয়ার এক মিনিটের মধ্যেই তিনি কিমের আন্তরিকতা সম্পর্কে ধারণা পেয়ে যাবেন।

তবে কিম তার দেশের পরমাণু অস্ত্র পরিত্যাগে কতটা আন্তরিক, সেটি এখনো জানা না গেলেও বৈঠক শেষে ট্রাম্প ইতিবাচক অবস্থানে রয়েছেন বলে জানিয়েছে সিএনএন। একান্তে বৈঠকের পর দুই দেশের উচ্চপর্যায়ের কর্মকর্তারা বৈঠকে বসেন দুই নেতা।

উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ কূটনীতিক কিম ওং কোল কিমের সঙ্গে রয়েছেন। বৈঠকটি প্রথমবার বাতিল হয়ে যাওয়ার পর তিনিই কিমের ব্যক্তিগত চিঠি ওয়াশিংটনে ট্রাম্পকে পৌঁছে দিয়েছিলেন।

এ ছাড়া উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী রি ওং হো, দেশটির ওয়ার্কার্স পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান রি সু ওং এ বৈঠকে উপস্থিত আছেন।

সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান জানায়, বৈঠকে কিম জং-উন আগে উপস্থিত হন।

ট্রাম্প ও কিম হোটেলের সিঁড়িতে দেখা করেন এবং দুই দেশের পতাকার সামনে করমর্দন করেন।

নিজের অভ্যাসবশতই শক্ত করে কিমের হাত চেপে ধরেন ট্রাম।

বৈঠক শুরুর আগে ট্রাম্প ও কিম সংবাদকর্মীদের সামনে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন।

এ সময়ে ট্রাম্প জানান, তার আশা এই বৈঠকটি খুবই সফল হবে। কিম জানান, এ পর্যায়ে আসাটা সহজ ছিল না এবং পুরানো সংস্কার ও অভ্যাস পার হয়েই আজ এ বৈঠকে উপস্থিত হতে পেরেছেন তিনি।

প্রায় আধা ঘণ্টা বৈঠকের পর বের হয়ে আসেন এই দুই নেতা। তাদের সঙ্গে শুধু দোভাষী উপস্থিত ছিল।

বৈঠকের পরই তারা নিজ নিজ উপদেষ্টার সঙ্গে কথা বলতে যান। তার আগে আবারও কয়েক মিনিট সংবাদকর্মীদের সঙ্গে তারা কথা বলেন। কিম এই বৈঠককে ‘শান্তির পূর্বাভাস’ বলে আখ্যা দেন এবং ট্রাম্পও তার সঙ্গে সুর মেলান।

 

-এ


-->


সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক: আবু সুফিয়ান
চেয়ারম্যান: মুসলিমা সুফিয়ান

কল: 01723-980255,01919-972103
নিউজ রুম :01710-972103
ইমেল: [email protected]

১২মধ্য বেগুনবাড়ি,তেজগাঁও শিল্প এলাকা,ঢাকা -১২০৮
ইমেল: [email protected]