রবিবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৮
  • প্রচ্ছদ » আন্তর্জাতিক » বিদেশি সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্র ভাঙবে উত্তর কোরিয়া


বিদেশি সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্র ভাঙবে উত্তর কোরিয়া




ফটো নিউজ ২৪ : 13/05/2018


-->

দুই সপ্তাহের কম সময়ের মধ্যে বিদেশি সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্র ভাঙা শুরু হবে বলে জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

পিয়ংইয়ং ২৩ থেকে ২৫ মে-র মধ্যে কেন্দ্রটি ধ্বংসে প্রয়োজনীয় ‘প্রযুক্তিগত ব্যবস্থা’ নেওয়ার কথা জানিয়েছে বলে শনিবার দেশটির রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা কেসিএনএ-র এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, খবর বিবিসির।

 

গত বছরের সেপ্টেম্বরেই কেন্দ্রটির অংশবিশেষ হয়তো ধসে পড়েছিল বলে জানিয়েছিলেন বিজ্ঞানীরা।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ নেতা কিম জং উনের মধ্যে বৈঠকের তিন সপ্তাহ আগেই এ পদক্ষেপ নেওয়ার কথা।

 

কিম মে-র মধ্যে পুঙ্গি রি পারমাণবিক কেন্দ্রটি বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন বলে এপ্রিলে জানিয়েছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ার কর্মকর্তারা।

কেন্দ্রটি বন্ধের সময় যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ার বিশেষজ্ঞদের আমন্ত্রণ জানানো হবে বলেও জানিয়েছিলেন তারা।

দক্ষিণের প্রেসিডেন্ট মুন জে-ইনের সঙ্গে এপ্রিলে কিমের বৈঠকের পর উত্তরের শীর্ষ নেতার বরাত দিয়ে এসব কথা জানানো হয়েছিল।

তবে উত্তর কোরিয়ার শনিবারের বিবৃতিতে বিদেশি বিশেষজ্ঞদের পারমাণবিক কেন্দ্রটিতে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হবে কি না তার উল্লেখ ছিল না।

বিবিসি বলছে, পিয়ংইয়ং এর ঘোষণা অনুযায়ী পুঙ্গি রি কেন্দ্রের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব সুড়ঙ্গ বিস্ফোরক দিয়ে ধ্বংস করা হবে; সরিয়ে নেওয়া হবে সব পর্যবেক্ষণ সুবিধা, গবেষণা ভবন ও নিরাপত্তা চৌকি।

আবহাওয়া পরিস্থিতির ওপর বিবেচনা করে ২৩ থেকে ২৫ মের মধ্যে কোনো এক দিন পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্রটি ধ্বংস করা হবে বলেও জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

 

 

পুরো প্রক্রিয়া দেখতে দক্ষিণ কোরিয়া, চীন, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও রাশিয়ার সাংবাদিকদেরও আমন্ত্রণ জানানো হবে।

উত্তর কোরিয়া বলছে, স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতেই তারা বিদেশি সাংবাদিকদের পারমাণবিক কেন্দ্র ধ্বংস কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করার অনুমতি দিতে চাইছেন।

“এ অনুমতির উদ্দেশ্য হচ্ছে কেবল স্থানীয় সাংবাদিকরাই নন, অন্য দেশের সাংবাদিকরাও যেন স্বচ্ছতার সঙ্গে উত্তরের পারমাণবিক পরীক্ষা কেন্দ্রের ভাঙার কাজে তাৎক্ষণিক কভারেজ দিতে পারেন।”

‘নির্জন গভীর পাহাড়ি এলাকায় অবস্থিত পরীক্ষা কেন্দ্রটির স্থান স্বল্পতার’ কারণে অল্প কিছু দেশের সাংবাদিকদের আমন্ত্রণ জানানো হচ্ছে বলেও জানিয়েছে তারা।

উত্তর-পূ্র্বের পাহাড়ি এলাকায় অবস্থিত পুঙ্গি রি-কেই উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক কর্মসূচির প্রধান কেন্দ্র হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

কেন্দ্র সংশ্লিষ্ট মন্তাপ পাহাড়ের নিচে সুড়ঙ্গ খুঁড়ে খুঁড়ে এখানে পারমাণবিক পরীক্ষাগুলো চালানো হত বলে ধারণা বিশেষজ্ঞদের।

 

 

২০০৬ সালের পর থেকে গত এক যুগে এই কেন্দ্র থেকেই অন্তত ছয়টি পারমাণবিক পরীক্ষা চালায় পিয়ংইয়ং।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে চালানো সর্বশেষ পারমাণবিক পরীক্ষায় মন্তাপ পাহাড়ের একাংশ ধসে পড়েছিল বলে কেন্দ্রের আশপাশে হওয়া ধারাবাহিক ভূমিকম্পের মাত্রা দেখে বিজ্ঞানীরা ধারণা করেছিলেন।

ফেব্রুয়ারিতে দক্ষিণ কোরিয়ার পিয়ংচ্যাংয়ে অনুষ্ঠিত শীতকালীন অলিম্পিকে উত্তরের প্রতিনিধি দল অংশ নিলে দুই কোরিয়ার শীতল সম্পর্কের বরফ গলতে শুরু করে। এরই ধারাবাহিকতায় উত্তরের নেতার বৈঠকের আমন্ত্রণে সাড়া দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।

 

 

দুই কোরিয়ার শীর্ষ বৈঠকের পর কিমের সঙ্গে তার ১২ জুন সিঙ্গাপুরে বৈঠক হতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

কয়েকদিন আগে ‘শুভেচ্ছার নিদর্শনস্বরূপ’ বন্দি তিন মার্কিন নাগরিককেও মুক্তি দিয়েছে পিয়ংইয়ং।

 

বিবিসি বলছে, উত্তর কোরিয়ার প্রতিশ্রুত ‘অ-পারমাণবিকীকরণের’ সঙ্গে ওয়াশিংটনের দাবির কিছুটা ব্যবধান আছে।

যুক্তরাষ্ট্র চায় ‘বিস্তৃত, যাচাইযোগ্য ও নতুন করে শুরু করা যাবে না’ এমন পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ।

কিন্তু পিয়ংইয়ংয়ের এতে সায় আছে কি না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে বিবিসি।

 

 

বন্দি মার্কিনিদের ফিরিয়ে আনতে গত সপ্তাহে উত্তর কোরিয়া যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বলেছেন, উত্তর কোরিয়া পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণের ঘোষণা দিলেও যুক্তরাষ্ট্র ও অন্যান্য দেশকে তা ‘দৃঢ়ভাবে যাচাই’ করে দেখতে হবে।

 

-এ


-->


সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক: আবু সুফিয়ান
চেয়ারম্যান: মুসলিমা সুফিয়ান

কল: 01723-980255,01919-972103
নিউজ রুম :01710-972103
ইমেল: Photonews24@yahoo.com

১২মধ্য বেগুনবাড়ি,তেজগাঁও শিল্প এলাকা,ঢাকা -১২০৮
ইমেল: shufian707@gmail.com